শিরোনাম

» গোলাপগঞ্জ পৌর নির্বাচন, লড়াই হবে ত্রিমুখী

প্রকাশিত: ০১. অক্টোবর. ২০১৮ | সোমবার

গোলাপগঞ্জ পৌর নির্বাচন, লড়াই হবে ত্রিমুখী

মুহাম্মদ চেরাগ আলী: গোলাপগঞ্জে পৌর নির্বাচনকে সামনে রেখে প্রার্থীরা এখন বেপরোয়া। কোমরে আটগাঁট বেঁধে ভোট ভিক্ষায় নিঘুম রাত কাটাচ্ছেন তারা। ক্ষমতাসীন এবং বিরোধি দলের একাধিক প্রার্থী থাকলেও উভয়ের মধ্যে সৌহার্দ্যপূর্ণ আচরণ লক্ষ করা গেছে। আওয়ামীলীগ মনোনীত নৌকা প্রতীক নিয়ে মাঠে নেমেছেন দুইবারের নির্বাচিত পৌর মেয়র জাকারিয়া আহমদ পাপলু। গেল নির্বাচনে দলীয় ভেনারে বিদ্রোহী প্রার্থীর কাছে হার মানতে হয়েছিল তাকে। তৎকালিন নির্বাচিত মেয়র সিরাজুল জব্বার চৌধুরীর অকাল মৃতুতে নির্বাচন কমিশন আবারো এখানে উপ-নির্বাচনের আয়োজন করে। আর এ সুযোগে সাবেক মেয়র জাকারিয়া আহমদ পাপলু খালি মাঠে গোল দেয়ার চেষ্টা চালালে যুক্তরাজ্যস্থ আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক আমিনুল ইসলাম রাবেল ভাড়া ভাতে ছাঁই দিয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসাবে নিজেকে আত্ম প্রকাশ করেন।
পক্ষান্তরে বিএনপি’র প্রভাবশালী দুই প্রার্থী দলীয় ভেনার থেকে সরে গিয়ে নিজ নিজ এলাকার লোকজনের সমর্থনে স্বতন্ত্র পদ বেছে নিয়েছেন। তাদের ভোটব্যাংক একেবারে ফেলনা নয়। পৌর বিএনপি’র সভাপতি গোলাম কিবরিয়া চৌধুরী শাহিন এবং জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি মহিউস-সুন্নাহ চৌধুরী নার্জিস তাদের এলাকাবাসীর দোয়া নিয়ে মাঠ গরম করছেন। গত নির্বাচনে গোলাম কিবরিয়া চৌধুরী শাহিন ধানের শীষ নিয়ে নির্বাচন করে তেমন সুবিধা করতে পারেননি। বরং ভিক্ষা চাইনা কুকুর সামলা এমন অবস্থা হয়েছিল। আমিনুল ইসলাম রাবেল মাত্র কয়েক দিনের প্রচারণায় তেমন কোন সুবিধা করতে পারেননি। এবারে উভয় দলের প্রার্থীরা দলীয় প্রতীক নিতে তেমন আগ্রহ প্রকাশ করতে দেখা যায়নি।
গোলাপগঞ্জ পৌর শহরের ৯টি ওয়ার্ড ঘুরে দেখা গেছে ১, ২ ও ৩ নম্বর ওয়র্ডের মহিউস সুন্নাহ চৌধুরী নার্জিসের ২ নম্বর ওয়ার্ডসহ বাকি দু’টিতে তার অবস্থান আশানুরূপ। ৪ ও ৫ দখল করে রয়েছেন আমিনুল ইসলাম রাবেল। ৬ নম্বর ওয়ার্ডে সকল প্রার্থীর অনুসারী থাকলেও জাকারিয়া আহমদ পাপলু ও গোলাম কিবরিয়া চৌধুরী শাহিনের নাম উল্লেখযোগ্য। ৭ নম্বর ওয়ার্ডে জাকারিয়ার আহমদ পাপলুর বসবাস হলেও ভোট হবে ভাগ বাটোয়ারা। ৮ ও ৯ নম্বর ওয়ার্ড গোলাম কিবরিয়া চৌধুরী শাহিনের বলে মনে হচ্ছে।
পৌরশহর বিচরণ করে দেখা গেছে এবারের পৌর উপ-নির্বাচনে লড়াই হবে ত্রিমুখী। তন্মধ্যে গোলাম কিবরিয়া চৌধুরী শাহিনের মোবাইল, আমিনুল ইসলাম রাবেলের জগ আর মহিউস সুন্নাহ চৌধুরী নার্জিসের নারকেল গাছ নিয়েই ধারনা অনেকের।

Share Button

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ৬১১ বার

Share Button

সর্বশেষ খবর

Flag Counter