মাত্র এক মিনিটের ব্যবধানে দুইবার ভূমিকম্পে কাঁপলো সিলেট।

জিবি বার্তা ডেস্কে : বড় ভূমিকম্পের আতঙ্কের মাঝেই মাত্র এক মিনিটের ব্যবধানে দুইবার ভূমিকম্পে কাঁপলো সিলেট। সোমবার (৭ জুন) সন্ধ্যা ৬ টা ২৯ মিনিটে প্রথমবার হালকা ভূমিকম্প অনুভূত হলেও ফের ৬ টা ৩০ মিনিটে দ্বিতীয় বার কেঁপে উঠে সিলেট।

তবে সিলেটের ভূমিকম্পের হিসেব সিলেটে সংরক্ষিত না হয়ে চলে যায় ঢাকায়। তাই ঢাকা আবহাওয়ায় অফিসের জ্যেষ্ঠ আবহাওয়াবিদ মমিনুল ইসলামের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, এটার সময় ছিলো ৬টা ২৯ মিনিট ৩১ সেকেন্ড। আর মাত্রা ছিলো ৩ দশমিক ৮।

দুইবার ঝাঁকুনি অনুভব হলেও এটি একই ভূমিকম্পের ঝাঁকুনি হিসেবেই ধরে নেওয়া হচ্ছে বলে জানান আবহাওয়াবিদ মমিনুল ইসলাম। তিনি বলেন, এর উৎপত্তিস্থল ঢাকা থেকে ১৮৮ কিলোমিটার উত্তর পূর্ব দিকে। সে হিসেবে এটি সিলেট সেন্ট্রালেই ধরে নেওয়া যায়।

এদিকে পরপর দুইবার ভূমিকম্প অনুভূত হওয়ায় সিলেটের মানুষের মাঝে আতংক তৈরি হয়। এসময় মানুষ দিগবিদিগ ছুটাছুটি করা শুরু করেন। তবে ভূমিকম্পে কোন ক্ষয়ক্ষতির খবর পাওয়া যায়নি।

এর আগে (২৯ মে) সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত মাত্র ৫ ঘন্টার মধ্যে ৬ দফা ছোট-বড় ভূমিকম্পে কেঁপে ওঠেছিলো সিলেট। এই প্রথমবারের মতো এমন ঘন ঘন ভূ-কম্পনে আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন সিলেটের সাধারণ মানুষ। এর মাঝে ভূমিকম্প ঝুঁকিপূর্ণ সিলেটে নগরায়নে অধিকতা সতর্কতা অবলম্বনের কথা জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

এদিকে নজিরবিহীন এমন ঘটনার পর নড়েচড়ে বসে নগর কর্তৃপক্ষ। ঝুঁকিপূর্ণ ভবন অপসারণসহ জনসচেতনতা বাড়াতে জরুরি ভিত্তিতে নিচ্ছে নানা উদ্যোগ। এরই মধ্যে নগর কর্তৃপক্ষের আহ্বানে বৈঠক করেন, পুলিশ, ফায়ার সার্ভিস, নগর পরিকল্পনাবিদ সহ সংশ্লিষ্টরা। পরে.১০ দিনের জন্য ঝুঁকিপূর্ণ সকল মার্কেট বন্ধের নির্দেশ দেয় সিসিক।

আর সেদিন সকাল ১০টা ৩৬ মিনিটের সময় প্রথম ভূমিকম্পটি অনুভব হয়। এ কম্পনের রেশ কাটতে না কাটতেই ১০টা ৫০ মিনিটে ফের কেঁপে ওঠে সিলেট। এরপর সকাল সাড়ে ১১ টায় ও ১১ টা ৩৪ মিনিটে দুটি ভূ-কম্পন অনুভূত হলে সিলেটজুড়ে মানুষের মাঝে আতঙ্ক দেখা দেয়। তবে এখন পর্যন্ত কোন ক্ষয়ক্ষতির খবর পাওয়া যায়নি।

আবহাওয়া অধিদপ্তরের তথ্য অনুযায়ী- রিখটার স্কেলে ১০.৩৬ মিনিটে ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল ৩। ১০.৫০ মিনিটে ভূমিকম্পের মাত্রা ৪.১। এরপর ১১.৩০ মিনিটে হওয়া ভূমিকম্পের মাত্রা ছিল ২.৮। এছাড়া ১১টা ৩৪ মিনিটের ভূমিকম্পের মাত্রা ২ এর নিচে হওয়ায় সেটা গননায় নেয়া হয়নি। এছাড়া বেলা ১টা ৫৮ মিনিটে ফের ৪ মাত্রার কম্পন অনুভূত হয়। এরপর সোয়া ২টার দিকে আবারও ভূমিকম্প হলেও সেটা রিখটার স্কেলে ২ মাত্রার নিচে হওয়ায় গণনায় নেয়নি আবহাওয়া অধিদপ্তর। সবগুলো ভূমিকম্পের উতপত্তিস্থলই ছিলো সিলেট সদরে। সিলেট সেন্ট্রাল থেকে যার দূরত্ম শূন্য মিটার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *